ভ্যাক্সিনের কার্যকারিতা যাচাই করতে বিশ্বজুড়ে পরীক্ষা, সিদ্ধান্ত অ্যাস্ট্রাজেনেকার

0
57

#কোভিড-১৯:  এবার সারা বিশ্বে তাদের তৈরি ভ্যাক্সিনের কার্যকারিতা যাচাই করতে অতিরিক্ত পরীক্ষার ব্যবস্থা করতে পারে অ্যাস্ট্রাজেনেকা। বৃহস্পতিবার এই মন্তব্য করলেন সংস্থার সিইও প্যাসকাল সরিয়ট।

প্যাসকাল সরিয়ট জানিয়েছেন, ‘বর্তমানে আমেরিকায় চলা ট্রায়ালে অতিরিক্ত অধ্যায় যুক্ত না করে এবং টিকার কম পরিমাণ ডোজের কার্যকারিতা পরীক্ষা করার বদলে অতিরিক্ত ট্রায়ালের সিদ্ধান্ত নিতে পারে তাঁর সংস্থা। উল্লেখ্য, এর আগে ভুলবশত ট্রায়ালে কম পরিমাণ টিকা দেওয়া হয়েছিল বলে স্বীকার করায় অ্যাসট্র্রার ভ্যাক্সিন উৎপাদনের বিশ্বাসযোগ্যতা প্রশ্নের মুখে পড়ে।’

তিনি বলেন, ‘এবার যখন মনে হচ্ছে কম পরিমাণ প্রতিষেধক বেশি কার্যকর হবে, তখন আমাদের সেটার প্রমাণ দিতে হবে, এই কারণে অতিরিক্ত পরীক্ষা প্রয়োজন।’

Advertisement

সিইও জানিয়েছেন, এবারের পরীক্ষা পর্ব আন্তর্জাতিক স্তরের হলেও, কম সংখ্যক স্বেচ্ছাসেবী অংশগ্রহণ করতে পারবেন।

সরিয়ট আরও জানিয়েছেন, ‘ভ্যাক্সিনের অতিরিক্ত ট্রায়ালের জন্য ব্রিটেন ও ইউরোবিয়ান ইউনিয়নে অনুমোদনের সমস্যা দেখা দেবে না। তবে আমেরিকার খাদ্য ও ওষুধ নিয়ন্ত্রক বিভাগের অমনুমোদন পেতে সময় লাগবে। এর জন্য সাম্প্রতিক ট্রায়ালের ফলাফল ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার রিপোর্টে স্বচ্ছতার অভাব দায়ী হতে পারে।’ চলতি বছরের শেষে আরও কিছু দেশের অনুমোদন পাওয়া যাবে বলেও তিনি আশা করছেন।

প্রসঙ্গত, গত সোমবার অ্যাস্ট্রাজেনেকার তরফে জানানো হয়েছিল, তাদের তৈরি ভ্যাকিসন কোভিডের সংক্রমণ রুখতে গড়ে ৭০% কার্যকরী। তবে সেই সঙ্গে টিকা সম্পর্কে অস্পষ্ট তথ্যের জেরে ভ্যাক্সিনের সাফল্য নিয়ে বিতর্ক শুরু হয়। পরে অক্সফোর্ড বিশ্ববিদ্যালয় জানায়, উৎপাদন প্রক্রিয়ায় তফাৎ থাকায় কয়েকজন স্বেচ্ছাসেবককে আংশিক ডোজের টিকা দেওয়া হয়েছিল।

এরপর আমেরিকার ভ্যাক্সিন প্রকল্প অপারেশন ওয়ার্প স্পিড জানিয়ে দেয়, বেশি মাত্রায় কার্যকরী ডোজ নবীনদের উপরে প্রয়োগ করা হয়েছে এবং ভ্যাক্সিন পোরার সময় ভুলবশত কম পরিমাণ রাখায় কিছু স্বেচ্ছাসেবীকে অর্ধেক ডোজের টিকা দেওয়া হয়েছে।

Leave a Reply