অস্ট্রেলিয়ার করোনা ভ্যাকসিন ‘নিরাপদ’, দাবি অস্ট্রেলিয়ার স্বাস্থ্যমন্ত্রীর

0
151

করোনা মহামারির প্রথম ঢেউ কাটিয়ে দ্বিতীয় ঢেউয়ের মুখে সারা বিশ্ব। তবু এই মারণ রোগের ব্রহ্মাস্ত্র মানুষের হাতে এসে এখনও পৌছায়নি। ভ্যাকসিন তৈরির ইঁদুর দৌড়ে বিশ্বের তাবড় তাবড় দেশগুলো। ইতিমধ্যে বেশ কিছু ভ্যাকসিন আশার আলোও দেখিয়েছে। যেমন ব্রিটেশের অ্যাস্ট্রেজেনেকার নোভ্যাক্স। চূড়ান্ত পর্যায়ে চলছে ট্রায়াল। আশা করা হচ্ছে আগামী বছরের শুরুতেই বাজারে চলে আসবে সেই ভ্যাকসিন। আবার রাশিয়ার স্পুটনিক ভি ভ্যাকসিন ইতিমধ্যেই বাজারে চলে এসেছে।

এবার অস্ট্রেলিয়ান বিশ্ববিদ্যালয় এবং সিএসএল লিমিটেড যৌথ ভাবে তৈরী কোভিড -১৯ ভ্যাকসিন সম্পূর্ণ ‘নিরাপদ’ বলে জানাল সেদেশের স্বাস্থ্যমন্ত্রী গ্রেগ হান্ট। তিনি শুক্রবার বলেছেন, প্রাথমিক পরীক্ষা এটি নিরাপদ এবং অ্যান্টিবডি প্রতিক্রিয়া দেখাতে দেখিয়েছে। হান্ট আরও জানিয়েছেন, “অন্যান্য প্রার্থীদের কিছুটা পিছনে থাকলেও কুইন্সল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয় এবং সিএসএল দ্বারা নির্মিত ভ্যাকসিন প্রার্থী এখন পরীক্ষার শেষ পর্যায়ে শুরু করবেন।” হিন্ট কুইন্সল্যান্ডে সাংবাদিকদের বলেন, “প্রথম ক্লিনিকাল পরীক্ষার মাধ্যমে এই ভ্যাকসিন নিরাপদ বলে প্রমাণিত হচ্ছে এবং এটি একটি ইতিবাচক অ্যান্টিবডি প্রতিক্রিয়া প্রকাশ করছে।”

অন্যদিকে ফাইজার ইনক এবং অ্যাস্ট্রাজেনেকা উত্পাদক সহ বেশ কয়েকটি প্রার্থী শেষ পর্যায়ের পরীক্ষার ফলাফল খুব শীঘ্রই ঘোষণা করবে বলে আশা করা হচ্ছে। ফাইজার এই সপ্তাহের শুরুতে বলেছিলেন যে প্রাথমিক পরীক্ষার ফলাফলের ভিত্তিতে এর পরীক্ষামূলক COVID-19 ভ্যাকসিন ৯০% এরও বেশি কার্যকর ছিল।

Advertisement

অস্ট্রেলিয়া ইতোমধ্যে কুইন্সল্যান্ড বিশ্ববিদ্যালয়ের উন্নত প্রার্থীর ৫১ মিলিয়ন ডলার কিনতে সম্মত হয়েছে। অস্ট্রেলিয়া অস্ট্রাজেনেকা ভ্যাকসিনও কিনে ফেলবে শেষ পর্যায়ে পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পরে।

Leave a Reply