‘ক্ষমতা থাকলে গ্রেফতার কর, আমি জেলে থেকেই বাংলাকে জেতাব’, বাঁকুড়ার মঞ্চ থেকে বিজেপিকে সরাসরি হুংকার মমতার

0
307

#মমতা-বন্দ্যোপাধ্যায়:  আজ বাঁকুড়ার শুনুকপাহাড়ি ময়দানের জনসভা থেকে তৃণমূল নেত্রী হিসেবে বিজেপিকে চ্যালেঞ্জ ছুঁড়ে দিলেন রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। এদিনের রাজনৈতিক সভা থেকে মমতার হুঙ্কার, “বাঁকুড়ার একটি একটি করে আসন বুঝে নেব। একটাতেও বিজেপি থাকবে না। একটাতেও সিপিএম থাকবে না।” তিনি আরও বলেন, “তোদের ক্ষমতা থাকলে আমাকে গ্রেফতার কর। আমি জেলে থাকব। আমি জেলে থেকে বাংলাকে জেতাব। এই চ্যালেঞ্জ করে গেলাম।”

মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় এদিন মন্তব্য করেছেন, “লালুপ্রসাদ যাদবকে তো অনেকদিন ধরে জেলে পুরে রেখেছ। তাতে আটকাতে পেরেছ?” বিহারে বিধানসভা ভোটে বিজেপির জয়ের প্রসঙ্গে মমতার মন্তব্য, “বিহারে ওটা জেতা?‌ ওটা হারা, ওটা জেতা নয়।” মুখ্যমন্ত্রীর এদিন অভিযোগ তুলেছেন, “ভোট এলেই তৃণমূলকে ভয় দেখানো শুরু হয়। যাতে তৃণমূল নেতারা ভয় পেয়ে ওদের সঙ্গে চলে যায়। ওরা বলে, হয় ঘরে থাকো, নয়তো জেলে থাকো।‌ মনে রাখবেন, এই সব চমকানি, ধমকানি, টাকার কাছে আমি ভয় পাই না।”

এদিন বিরোধী দলগুলিকে কটাক্ষ করে মুখ্যমন্ত্রী বলেন, ‌”তিনটে জগাই, মাধাই, গদাই এক হয়েছে। আর এক হয়ে তৃণমূলকে হারানোর জন্য লোকসভা নির্বাচনে একসঙ্গে কাজ করেছে। একসঙ্গে টাকা নিয়েছে, একসঙ্গে ভোট দিয়েছে। যে সিপিএমের হার্মাদ এক সময় মানুষের ওপর অত্যাচার করেছিল সেই হার্মাদ বিজেপির হার্মাদে পরিণত হয়েছে। রঙটা শুধু পাল্টে গিয়েছে। হৃদয়টা একই আছে।” সিপিএমকে আক্রমণ করে মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় বলেছেন, “সিপিএমকে দেখে আরও লজ্জা হয়। সব নির্লজ্জ। এরা বিজেপির পায়ে পড়েছে নিজেদের চুরি থেকে বাঁচানোর জন্য। সারদা-নারদা কিন্তু ওরাই করেছে।”

Advertisement

 

 

Leave a Reply